Logo
আজঃ সোমবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২
শিরোনাম

কুরবানির জন্য প্রস্তুত ৪ লাখ ৩৩ হাজার পশু

প্রকাশিত:শনিবার ১৮ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ১৯৭জন দেখেছেন
Image

পবিত্র ঈদুল আযহা ও কুরবানি ইসলামের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব ও আত্মত্যাগের অনন্য ইবাদত। আত্মত্যাগ ও মানবতার বার্তা নিয়ে প্রতিবছরই মুসলিম উম্মাহর সামনে হাজির হয় এই উৎসব। পবিত্র ঈদ উল আযহায় সবচেয়ে বেশি চাহিদা হলো কুরবানির পশু। ঈদ উল আযহাকে সামনে রেখে নওগাঁ জেলায় খামারি ও ব্যক্তি পর্যায়ে ৪ লাখ ৩৩ হাজার গবাদিপশু প্রস্তুত রয়েছে। এসব পশুর মধ্যে রয়েছে- ষাঁড়, বলদ, গাভী (বাচ্চা উৎপাদনে অক্ষম) মহিষ ও ছাগল।

জেলা প্রাণিসম্পদ দপ্তর সূত্রে জানা যায়, খামারি ও ব্যক্তি পর্যায়ে নওগাঁ জেলায় এবার ৪ লাখ ৩৩ হাজার ৭৩টি গবাদিপশু কুরবানির জন্য প্রস্তুত রাখা হয়েছে। যার মধ্যে নওগাঁ সদরে ৪২ হাজার ৪২০টি, রাণীনগরে ৪১ হাজার ৭৪১টি, আত্রাইয়ে ২৪ হাজার ৭৮৩টি, ধামইরহাটে ৪৪ হাজার ৮২৫টি, বদলগাছীতে ৩২ হাজার ৩৭৯টি, নিয়ামতপুরে ৩২ হাজার ৯৬টি, পোরশায় ৩৩ হাজার ৪৩৬টি, সাপাহারে ২৮ হাজার ৭৬৬টি, মহাদেবপুরে ৪২ হাজার ৫৮৯টি, পত্নীতলায় ৪৬ হাজার ৮১০টি এবং মান্দায় ৬৩ হাজার ২২৮টি গবাদি পশু কুরবানির জন্য প্রস্তুত করা হয়েছে।

জেলার বেশ কয়েকটি খামার ঘুরে জানা যায়, ঈদ উল আযহা উপলক্ষে ভালো দামের আশায় খামারিরা পশু লালন-পালন করতে ব্যস্ত সময় পার করছেন। খরচ বেশি হলেও ভালো দাম পাওয়া নিয়ে আশা করছেন খামারিরা। অন্যদিকে ভারতীয় গরু দেশে প্রবেশ যেন না করতে পারে তারও দাবি জানিয়েছেন তারা।

নওগাঁ সদর উপজেলার মৃধাপাড়া এলাকার সজিব এ্যাগ্রোর মালিক মো.সজিব হোসেন বলেন, আমার খামারে ৯০টি ষাড় গরু রয়েছে। গরুগুলোকে লালন-পালন ও পরিচর্যা করে ক্রেতার মনের মত করে তুলছি। আগামী সপ্তাহ থেকে গরুগুলোকে বাজারে বিক্রি করা শুরু করব। গত ১০মাস আগে গরুগুলোকে কিনেছি মোটা-তাজা করে ঈদ বিক্রি করার জন্য। প্রতিটি গরু ৭০-৮০হাজার টাকায় কিনেছি। প্রতিদিন প্রতিটি গুরুর জন্য খাবার বাবদ খরচ হয় ৩০০ টাকার মতো। যদি এই দামে বিক্রি করতে পারি তবে সব খরচ বাদ দিয়ে গরু প্রতি ৩০ থেকে ৩৫ হাজার টাকার মতো লাভ হবে।

রাণীনগর উপজেলার কাশিমপুর গ্রামের খামারি রফিকুল আলম বলেন, আমার খামারে ১০টি গরু ও ৫ছাগল আছে। ১বছর আগে এসব গরু ও ছাগল কিনেছিলাম। গরুগুলো ৫০-৬০ হাজার টাকায় কিনেছিলাম। আর ছাগলগুলো ৭-৮ হাজার টাকা উন্নত জাতের প্রতিটি ছাগল কিনেছিলাম। ভালো দাম পাবার আশায় পরিচর্চা করে যাচ্ছি। গো-খাদ্যের দাম কিছুটা বেশি । ভারতীয় পশু দেশে না ঢুকতে দিলে, ভালো দাম পাবো বলে আশা করছি। ভারতীয় পশু যেন দেশে না ঢুকতে পারে সেজন্য প্রশাসনের কঠোর নজরদারির দাবি করছি।

মান্দা উপজেলার মৈনম গ্রামের খামারি সিদ্দিক হোসেন বলেন, ঈদ উল আযহা উপলক্ষে ৫টি গরু প্রস্তুত আছে। ভারতীয় পশু যেন দেশে না ঢুকতে পারে সেদিকে প্রশাসন যেন নজর দেই। তাহলে আমরা ভালো দাম পাবো বলে মনে করছি। নইলে লোকসান হয়ে যাবে আমাদের। কারণ ভারতের পশু দেশে আসলে দাম কমে যাবে গরুগুলোর। তখন আমাদের লোকসান হতে পারে।

জেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা মহির উদ্দীন বলেন, ঈদ উল আযহাকে সামনে রেখে নওগাঁ জেলায় খামারি ও ব্যক্তি পর্যায়ে ৪ লাখ ৩৩ হাজার গবাদিপশু প্রস্তুত রয়েছে। এরমধ্যে শুধু গরুই ৬৭ হাজার। জেলায় প্রায় ২৫হাজারের মতো খামার রয়েছে। গত বছর ২ লক্ষ ২৫ হাজার কুরবানি হয়েছিল। এবারে জেলায় প্রায় ৩ লাখের বেশি কুরবানি হবে বলে ধারণা করছি। জেলায় কুরবানির জন্য পশুর সংকট হবে না। চাহিদার তুলনায় জেলার খামারগুলোতে পশু বেশি থাকায় এবার অন্য কোথাও থেকে পশু আনার প্রয়োজন নেই।

এই কর্মকর্তা আরও বলেন, জেলার খামারিরা কুরবানির পশু বিক্রির জন্য ক্রেতাদের চাহিদা অনুযায়ী প্রস্তুত করতে ব্যস্ত সময় পার করছেন। পশুগুলোকে মোটাতাজা করার জন্য কোনো ধরনের ক্ষতিকর রাসায়নিক পদার্থ বা ওষুধ খাওয়ানো হচ্ছে না। সেদিকে আমাদের নজর রয়েছে। মাঠের সবুজ ঘাস, ভুসি, খৈল, চালের গুড়া, ছোলা খাওয়াচ্ছেন। আর পশুকে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন ও সুস্থ রাখতে আমরা খামারিদের পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছি। অনেক সময় ভারতীয় পশু দেশে অবৈধভাবে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী নিয়ে আসে। ফলে প্রকৃত খামারিরা সঠিক মূল্য থেকে বঞ্চিত হয়। কারণ ভারতীয় গরু আসায় দাম অনেক কমে যায়। জেলা প্রশাসন, পুলিশ ও বিজিবি এসব ব্যাপারে নজরদারি করছেন।


আরও খবর

অপরিশোধিত তেলের দাম বেড়েছে

মঙ্গলবার ২১ জুন ২০২২




ঝালকাঠিতে

এমপি আমু’র পিতার ৫৫তম মৃত্যু বার্ষিকী পালন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ৩০ আগস্ট ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ৯২জন দেখেছেন
Image

কঞ্জন কান্তি চক্রবর্তী: ঝালকাঠি: কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র ও সমন্বয়ক সাবেক মন্ত্রী ঝালকাঠির রাজনৈতিক অভিভাবক আমির হোসেন আমু এমপির মরহুম পিতা মোয়াজ্জেম হোসেনের ৫৫ তম মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

অন্যদিকে মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে এমপি আমির হোসেন আমু'র পরিবারবর্গের পক্ষ থেকে মঙ্গলবার বাদ যোহর মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিলো। ঝালকাঠি আমতলা রোডস্থ আমির হোসেন আমু'র বাসভবনে আয়োজিত দোয়া অনুষ্ঠানে প্রয়াত মোয়াজ্জেম হোসেন ও তার সহধর্মিণী আকলিমা বেগম এর রুহের মাগফেরাত কামনায় মিলাদ, দুরুদ পাঠ এবং দোয়া মুনাজাত করা হয়। দোয়া শেষে উপস্থিত সকলের মাঝে তাবারক বিতরন করা হয়।

মিলাদ ও দোয়ার পূর্বে প্রয়াত মোয়াজ্জেম হোসেন ও আকলিমা বেগমের জীবনী নিয়ে আলোচনা করেন জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি জেলা পরিষদ প্রশাসক সরদার মোঃ শাহআলম, সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট খান সাইফুল্লাহ পনির। অনুষ্ঠানে জেলা আ’লীগের সহসভাপতি নলছিটি উপজেলা চেয়ারম্যান সিদ্দিকুর রহমান, যুগ্মসম্পাদক নুরল আমিন সুরুজ, পৌর আ’লীগ সভাপতি মেয়র আলহাজ্ব লিয়াকত আলী তালুকদার, সাধারন সম্পাদক মাহাবুব হোসেন, আইনজীবী সমিতির সভাপতি কৃষকলীগ নেতা এড. আব্দুল মন্নান রসুল, জেলা আ’লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক হাবিবুর রহমান হাবিল, উপজেলা আ’লীগ সভাপতি আঃ রশিদ হাওলাদার, সাধারন সস্পাদক হাফিজ আল মাহমুদসহ জেলা, পৌর ও উপজেলা আ’লীগ, অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা-কর্মীসহ গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর

বিষখালীর হঠাৎ ভাঙনে ছয় দোকান বিলীন

মঙ্গলবার ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২২




কাশিয়ানীতে ধাক্কা খেয়ে পড়ে গিয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ৩৯৪জন দেখেছেন
Image

পরশ উজির, কাশিয়ানী: গোপালগঞ্জে কাশিয়ানীতে তুচ্ছ ঘটনা নিয়ে কথা কাটাকাটির জেরে ধাক্কা খেয়ে পড়ে গিয়ে জলিল মোল্লা (৬৮) নামে এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা ৬টার দিকে কাশিয়ানী উপজেলার পারুলিয়া ইউনিয়নের বড়পারুলিয়া দক্ষিণপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। কাশিয়ানী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ওসি মো. ফিরোজ আলম মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চত করেছেন।

নিহত জলিল মোল্লার বাড়ি কাশিয়ানী উপজেলার পারুলিয়া ইউনিয়নের বড়পারুলিয়া দক্ষিণপাড়া গ্রামে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র থেকে জানা যায়,, রাতে পারুলিয়া বাজারের ঠান্ডু শেখের পুরির দোকানে বসে গল্প করছিলেন জলিল মোল্লা ও মঈন শরীফ। এ সময় তুচ্ছ বিষয় নিয়ে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটির হলে এক পর্যায়ে মঈন শরীফ জলিল মোল্লাকে ধাক্কা দেয়। এতে নিচে পড়ে গিয়ে জলিল মোল্লা মারা যায়। বিষয়টি জানার পর পরিবারের লোকজন জলিল মোল্লার মরদেহ বাসায় নিয়ে আসে।

পরে খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য গোপালগঞ্জ ২৫০-শয্যা বিশিস্ট জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।

তিনি আরো জানান, ময়না তদন্তের রিপোর্ট পাওয়ার পর জলিল মোল্লার মৃত্যু কিভাবে হয়েছে তা নিশ্চিত হওয়া যাবে।


আরও খবর



লোহাগড়ার কালনা সেতু পরিদর্শন করলেন সেতুমন্ত্রী

প্রকাশিত:শনিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ২৫জন দেখেছেন
Image
মাহফুজুল ইসলাম মন্নু,লোহাগড়া প্রতিনিধিঃ দেশের প্রথম ছয় লেনের কালনা সেতু পরিদর্শন করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি। বৃহস্পতিবার (২২ সেপ্টেম্বর) বেলা ১১টার দিকে তিনি কালনা সেতু দেখতে আসেন।

মন্ত্রী বলেন, অক্টোবরে উদ্বোধন হবে কালনা পয়েন্টে নির্মাণাধীন সেতুটি। নড়াইলবাসীর জন্য এ সেতুর প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী। সেতুটি উদ্বোধনের তারিখ প্রধানমন্ত্রীই নির্ধারণ করবেন। পদ্মা সেতু চালু হওয়ার পর কালনা সেতু ছিল মিছিংলিংক। এ সেতু চালু হলে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের যোগাযোগ ব্যবস্থাকে কানেক্ট করবে। 
 
এ সময় উপস্থিত ছিলেন নড়াইল-২ আসনের সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মর্তুজা, সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর খুলনা অঞ্চলের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী আসলাম আলী, গোপালগঞ্জ অঞ্চলের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী সুরুজ মিয়া, কালনা সেতুর প্রকল্প পরিচালক শ্যামল কুমার ভট্টাচার্য, প্রকল্প ব্যবস্থাপক আশরাফুজ্জামান, নড়াইলের পুলিশ সুপার সাদিরা খাতুন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) ফকরুল হাসান,কেন্দ্রীয় কমিটির আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বি এম মোজাম্মেল হক, লোহাগড়া উপজেলা আ’লীগের সভাপতি মুন্সী আলাউদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক ও লোহাগড়া পৌর মেয়র সৈয়দ মসিয়ূর রহমানসহ অনেক নেতৃবৃন্দ। 

সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, আমরা মিয়ানমারের উসকানির ব্যাপারে সংযমী আচরণ করছি। পরিষ্কার কথা, আমরা কারো সঙ্গে যুদ্ধ করব না। আমরা প্রথম আক্রমণকারী হতে চাই না। ইউক্রেন-রাশিয়ার যুদ্ধ বিশ্ব অর্থনীতিকে বিধস্ত করে তুলেছে। আরেকটি যুদ্ধ আমরা করতে চাই না। নির্বাচন প্রসেঙ্গে বলেন, বিএনপি প্রতিদিনই তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দিবাস্বপ্ন দেখছে, কিন্তু আদালতের রায়ে তত্ত্বাবধায়ক সরকার এখন মিউজিয়ামে চলে গেছে। আমাদের কিছু করার নেই। এই নির্বাচন কমিশনের অধীনে আগামি সংসদ নির্বাচন নিরপেক্ষ ভাবে অনুষ্ঠিত হবে। এটা বারবার বলার পরও তারা (বিএনপি) পানি ঘোলা করছে।
   
সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের ক্রস বর্ডার রোড নেটওয়ার্ক ইম্প্রুভমেন্ট প্রজেক্টের আওতায় জাপান ইন্টারন্যাশনাল কো-অপারেশন এজেন্সির (জাইকা) অর্থায়নে কালনা সেতু নির্মিত হয়েছে। কালনা সেতু চালু হলে  গোপালগঞ্জ, ফরিদপুর, নড়াইল, যশোর,মাগুরা, বেনাপোল, সাতক্ষীরাসহ দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের বেশ কয়েকটি জেলার কোটি কোটি মানুষ উপকৃত হবেন। 

আরও খবর

কোষ্টগার্ডের অভিযানে গাঁজাসহ আটক-৪

শনিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২




কাশিয়ানীতে শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল

প্রকাশিত:শনিবার ২৭ আগস্ট ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ১১৪জন দেখেছেন
Image

পরশ উজিরঃ স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এঁর ৪৭তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে ওড়াকান্দী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আয়োজনে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানের শুরুতেই পবিত্র কোরান থেকে তেলাওয়াত ও জাতির পিতাসহ ১৫ আগস্টে নিহত সকল শহীদের রুহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া করা হয়।

শুক্রবার (২৬ আগস্ট) বিকালে গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলার ওড়াকান্দি ইউনিয়নের আড়ুয়াকান্দি বাজারে ওই সভার আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মোক্তার হোসেন।

অনুষ্ঠানে ওড়াকান্দি ইউনিয়ন আওয়ামীলগের সভাপতি ফেরদৌস হোসেনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মো. খোকন মল্লিকের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী জাহাঙ্গীর আলম, রাজউক কল্যাণ ট্রাস্টের মহা সচিব ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক এ্যাড: মো. মাহাবুবুর রহমান।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন- বঙ্গবন্ধু ছাত্র আইন পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক এ্যাড: মোল্লা মশিউর রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জামিনুর রহমান জাপান, যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক এ্যাড: ফারুক আহমেদ, সদস্য সিকদার সেলিমসহ বিভিন্ন ইউনিয়নের নেতাকর্মীরা।।

অনুষ্ঠানের শেষে গরিব-দুস্থদের মাঝে খাবার বিতরণ করেন ফেরদৌস হোসেন ও আমন্ত্রিত অতিথিরা।



আরও খবর



মতিঝিল থানার ৮, ৯ ও ১০ নং ওয়ার্ড আওমীলীগের ত্রিবাষীক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ৭৮জন দেখেছেন
Image

মো: ইবাদত হোসেনঃ সোমবার রাজধানীর মতিঝিল টিএনটি স্কুল মাঠে ৮, ৯ ও ১০ নং ওয়ার্ড আওমীলীগের ত্রিবার্ষীক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

অনুষ্ঠানের শুভ উদ্ভোধন করেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ¦ আবু আহমেদ মান্নাফী।

এসময় প্রধান অতিথি হিসিবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কপোরেশনের মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস, প্রধান বক্তা হিসিবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ হুমায়ুন কবির।

অতিথিবৃন্দ দেশের উন্নয়নের ধারা বজায় রাখতে ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত কে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে সকল নেতাকর্মীকে একসাথে কাজ করার আহŸান জানান।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আব্দুস সাত্তার মাসুদ, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের ১নং যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এ্যাডঃ কাজী মোরশেদ হেসেন কামাল, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক মোঃ নাসির হোসেন, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের ৬৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শফিকুল ইসলাম খান দিলু, ০৯নং ওয়াড যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও ০৯নং ওয়ার্ড আওমীলীগের সাধারণ সম্পাদক পদপ্রাথী নুরুল ইসলাম চৌধুরী নুরুসহ আয়োমীলীগের বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেত্রীবৃন্দ ও ইলেক্টিক ও পিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিক বৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


এ সময় ৯ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী নুরুল ইসলাম চৌধুরী নুরু বলেন আমাকে যদি ৯ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয় তাহলে আমি এ এলাকার সন্ত্রাস মাদক নির্মূল সহ এলাকার উন্নয়নে কাজ করে যাবো।


আরও খবর